Published On: সোম, আগ ২২, ২০১৬

‘আশরাফুল বিসিবির পরিবারের সদস্য, তার পরিচর্যা করা উচিত

Bangladesh cricketer Mohammad Ashraful runs during a practice session at The Pallekele International Cricket Stadium in Pallekele on March 30, 2013. Sri Lanka and Bangladesh will play one Twenty20 match in Pallekele on March 31. AFP PHOTO/ Ishara S. KODIKARA        (Photo credit should read Ishara S. KODIKARA/AFP/Getty Images)

Bangladesh cricketer Mohammad Ashraful runs during a practice session at The Pallekele International Cricket Stadium in Pallekele on March 30, 2013. Sri Lanka and Bangladesh will play one Twenty20 match in Pallekele on March 31. AFP PHOTO/ Ishara S. KODIKARA (Photo credit should read Ishara S. KODIKARA/AFP/Getty Images)


বাংলাদেশ ক্রিকেটের প্রথম সুপারস্টার মোহাম্মদ আশরাফুল তিন বছরের নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে শনিবার (১৩ আগস্ট) থেকে মুক্ত হয়েছেন। বিপিএল কেলেঙ্কারিতে আশরাফুলকে প্রথমে সব ধরনের ক্রিকেট থেকে পাঁচ বছরের জন্য নিষিদ্ধ করা হয়। পরে আপিল করলে শর্তসাপেক্ষে তিন বছরের জন্য নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়। তবে আইসিসি আগেই শর্ত দিয়েছিল, তিন বছর পর আশরাফুলের উপর নিষেধাজ্ঞা উঠে গেলেও ফ্র্যাঞ্চাইজিভিত্তিক টুর্নামেন্ট ও জাতীয় দলে খেলতে পারবেন না আশরাফুল। আর এসব বিষয় নিয়ে কথা বলতে একটি বেসরকারি চ্যানেলে আসেন মোহাম্মদ আশরাফুল। সেই সরাসরি অনুষ্ঠানে টেলিফোনের মাধ্যমে যোগ দেন বাংলাদেশের সাবেক অধিনায়ক খালেদ মাসুদ পাইলট। তিনি আশরাফুলকে ফিরতে নানা রকমের উপদেশ দেয়ার পাশাপাশি ভবিষ্যতের জন্য শুভকামনা জানান। অনুষ্ঠানে পাইলট যোগ দেয়ার শুরুতেই আশরাফুলকে শুভেচ্ছা জানান। তিনি বলেন, “তার (আশরাফুল) জন্য প্রথমেই শুভ কামনা থাকবে। নতুনভাবে সে শুরু করুক।” এদিকে নিষেধাজ্ঞা শেষ হলেও সামনে বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগে (বিসিএল) আশরাফুলের অংশগ্রহণের পুরাটা নির্ভর করছে ফ্রাঞ্চাইজি ও নির্বাচকদের উপর। এ প্রসঙ্গে পাইলট বলেন, “আমি কয়েকদিন আগে পত্র পত্রিকায় পড়ছিলাম যে, তাকে বিসিএলের জন্য বিবেচনা করা হবে না। আমার কাছে মনে হয়, আশরাফুল সর্বোচ্চ লেভেলের ক্রিকেট খেলেছে। সে জানে কিভাবে পারফর্ম করতে হয়। তাই তাকে বিশেষভাবে বিবেচনা করা উচিত।” এদিকে অনেক দিন বিসিবির অধীনে ছিলেন মোহাম্মদ আশরাফুল। তাই বিসিবির পরিবারের একজন সদস্যকে নতুন করে সুযোগ দেয়ার পক্ষে পাইলট। তিনি এ প্রসঙ্গে বলেন, “আশরাফুল অনেক দিন জাতীয় দলে খেলছে, তাই সে বিসিবির পরিবারের একজন সদস্যের মতো। সে এতোদিন খেলায় ছিল না, তাই বিসিবির উচিত পরিবারের সদস্যকে ঠিকমতো পরিচর্যা করা।” সম্প্রতি বাংলাদেশ জাতীয় দলের কোচ চান্দিকা হাতুরুসিংহে জানিয়েছেন, নিয়ম অনুসারে আশরাফুলকে বিসিএলে চান না তিনি। এই বিষয়ে খালেদ মাসুদ বলেন, “কিছুদিন আগে শুনলাম কোচ বলেছিলো যে তাকে নেয়া হবে না, একটা নিয়মের মধ্যে দিয়ে তাকে আসতে হবে। তবে একটা কথা, বিসিএলে যারা খেলে তাদের সবার কিন্তু জাতীয় দলে খেলার নিশ্চয়তা নাই। আমার মনে হয় ৬০-৭০ ভাগ খেলোয়াড় জাতীয় দলে খেলার যোগ্যতা রাখে না। কিন্তু প্রথম শ্রেনীর ক্রিকেট খেলতে হবে তার জন্যই খেলানো হয়। সেক্ষেত্রে আমি মনে করি, আশরাফুলকে একটা বিশেষ বিবেচনা করা উচিত। তার জন্য আলাদা করে বোর্ড থেকে বিষয়টা দেখা উচিত। পাশাপাশি তার ফিটনেসের বিষয়টা দেখা উচিত। সে কেন বিসিএলে সুযোগ পাবে না? সবকিছু বিবেচনা করে যদি মনে হয় সে বিসিএলের জন্য ফিট আছে, তাহলে তাকে অবশ্যই সুযোগ দেয়া উচিত।” আশরাফুলের এতো পরীক্ষা দেয়ার বিষয়টির পক্ষে নন পাইলট, পাশাপাশি এখনি তাকে জাতীয় দলে চাইছেন না তিনি, তবে বিসিএলে সুযোগের কথা প্রসঙ্গে পাইলট বলেন, “যেহেতু আশরাফুল দেশের হয়ে অনেক দিন পারফর্ম করে এসেছেন সেহেতু তাকে নিচ থেকে পরীক্ষা দিয়ে আসতে হবে বিষয়টা তেমন না। আমি বলছি না তাকে এখনি জাতীয় দলে সুযোগ দিতে হবে। তবে বিসিএলে সুযোগ দেয়া উচিত।” এদিকে আশরাফুল পাইলটের কাছে দোয়া চান। তখন পাইলট বলেন, “আশরাফুল ভাই সবসময় আপনার জন্য দোয়া থাকবে। পাশাপাশি আপনার জন্য এটিই সেরা সুযোগ । তাই সর্বোচ্চ পরিশ্রম করে যান।”

আরও খবর

(Visited 1 times, 1 visits today)

Editor : Rahmatullah Bin Habib


55/B, Purana Palton, Dhaka-1000


Email : nobosongbad@gmail.com


copyright @nobosongbad.com


‘আশরাফুল বিসিবির পরিবারের সদস্য, তার পরিচর্যা করা উচিত